বৃহস্পতিবার   ১৭ জুন ২০২১ || ৪ আষাঢ় ১৪২৮ || ০৫ জ্বিলকদ ১৪৪২

অপরাজেয় বাংলা :: Aparajeo Bangla

ক্ষমতায় যেতে বিএনপি রঙিন খোয়াব দেখছে: ওবায়দুল কাদের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

১৫:০৫, ৯ জুন ২০২১

আপডেট: ১৫:০৫, ৯ জুন ২০২১

৭৭

ক্ষমতায় যেতে বিএনপি রঙিন খোয়াব দেখছে: ওবায়দুল কাদের

বিএনপির গণতন্ত্র ছিল কারফিউ গণতন্ত্র, মন্তব্য ওবায়দুল কাদেরের
বিএনপির গণতন্ত্র ছিল কারফিউ গণতন্ত্র, মন্তব্য ওবায়দুল কাদেরের

রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় যেতে বিএনপি রঙিন খোয়াব দেখছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বুধবার (৯ জুন) নিজ বাসভবনে নিয়মিত ব্রিফিংয়ের সময় তিনি এ কথা বলেন।

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুলকে কটাক্ষ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘ক্ষমতায় যেতে রঙিন খোয়াব দেখছে বিএনপি। ফখরুল সাহেবরা রঙিন চশমার ফাঁক দিয়ে গণ-অভ্যুত্থানের মাধ্যমে সরকার পরিবর্তনের দুঃস্বপ্ন দেখেছে।’

বিএনপি কী নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতার পরিবর্তন চায়?— এমন প্রশ্ন তুলে তিনি বলেন, ‘বিএনপির যে কোনো সহিংস তৎপরতা রুখে দেয়া হবে। আন্দোলনের নামে সহিংসতা সৃষ্টি করে ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করতে চাইলে সরকার সমুচিত জবাব দিবে।’

বিএনপি নিজেদের বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবক্তা দাবি করলেও ওবায়দুল কাদের তাদের কর্মকাণ্ডকে ‘বহুদলীয় তামাশা’ বলে অভিহিত করেন। তিনি বলেন, ‘২০০৬ সালে এক কোটি ২৫ লাখ ভুয়া ভোটার দিয়ে বিএনপি গণতন্ত্রের কফিনে শেষ পেরেক মারতে চেয়েছিল। দলীয় লোককে তত্তাবধায়ক সরকারের প্রধান করতে চেয়ে বিএনপি ওয়ান ইলেভেনের প্রধান কারণ সৃষ্টি করেছিল।

‘বিচারপতিদের বয়স বাড়িয়ে বিএনপি দলীয় লোক কে এম হাসানকে তত্তাবধায়ক সরকারের প্রধান করতে চেয়েছিল। সেই পরিস্থিতিই বাংলাদেশে ওয়ান ইলেভেন সৃষ্টির মুল কারণ। আওয়ামী লীগ নাকি গণতন্ত্রকে হত্যা করেছে বিএনপি নেতাদের এমন নির্লজ্জ বক্তব্য শুনলে জনগণ হাসে। হ্যা- না ভোটের মাধ্যমে বিএনপিই গণতন্ত্রকে হত্যা করেছিল।’

কাদের বলেন, ‘১৯৭৮ সালে সামরিক উর্দি পরে অস্ত্রের মুখে বিচারপতি সায়েমকে সরিয়ে কে রাষ্ট্রপতি হয়েছিল? বিএনপির গণতন্ত্র ছিল কারফিউ গণতন্ত্র। তাদের করা ১৫ ফেব্রুয়ারির ভোটারবিহীন নির্বাচন কোন গণতন্ত্র?’

তিনি বলেন, ‘বিরোধী দল হিসেবে গণতন্ত্রের বিকাশে বিএনপি কী ভূমিকা রেখেছে জাতি তা জানতে চায়। সর্বশেষ নির্বাচন থেকে সরে যাওয়ার ঘোষণা দিয়ে বিএনপি আবারও প্রমাণ করেছে, তারা গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে না।
 

Dutch-Bangla Bank
TELETALK
খবর বিভাগের সর্বাধিক পঠিত