শুক্রবার   ০৯ ডিসেম্বর ২০২২ || ২৫ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯ || ১৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

অপরাজেয় বাংলা :: Aparajeo Bangla

আন্দোলনে গণঅধিকার পরিষদকে পাশে পাবে বিএনপি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

১৯:৪১, ৩ আগস্ট ২০২২

২৫৩

আন্দোলনে গণঅধিকার পরিষদকে পাশে পাবে বিএনপি

সরকার পতনের যুগপৎ আন্দোলনে ড. রেজা কিবরিয়া ও নুরুল হক নূরের নেতৃত্বাধীন ‘গণঅধিকার পরিষদ’কে পাশে পাবে বিএনপি।

বুধবার (৩ আগস্ট) পুরানা পল্টনে প্রীতম জামান টাওয়ারে গণঅধিকার পরিষদের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংলাপ শেষে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ কথা জানান।

তিনি বলেন, গণঅধিকার পরিষদ আমাদের সঙ্গে সবগুলো বিষয়ে একমত ধারণ করে। বিশেষ করে এই সরকারের অধীনে কোনো নির্বাচন নয়, সেই ব্যাপারে তারা একমত। আমরা এ বিষয়েও একমত হয়েছি যে, আর এই সরকারকে ক্ষমতায় থাকতে দেয়া যায় না। সরকারকে সরানোর জন্য জনগণকে সঙ্গে নিয়ে একটা ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের ব্যাপারে আমরা একমত হয়েছি। আমরা একমত হয়েছি এই আন্দোলন আমরা যুগপৎ করব।

সরকারের পদত্যাগ, সংসদ ভেঙে দেয়া, নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার, নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন প্রভৃতি বিষয়ে গণঅধিকারের সাথে ঐকমত্য হয়েছে উল্লেখ করে মির্জা ফখরুল বলেন, সবার কাছে গ্রহণযোগ্য একটি নির্বাচন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে একটি জনগণের পার্লামেন্ট ও সরকার গঠন করা। যে সরকার সত্যিকার অর্থে জনগণের প্রতিনিধিত্ব করবে।

ফখরুল বলেন, তারপরে রাষ্ট্র মেরামতের জন্য সবাইকে নিয়ে আমরা একটি জাতীয় সরকার গঠন করব। এ বিষয়টি আলোচনা মধ্যে আছে। যে বিষয়গুলো আমরা মনে করি পরিবর্তন হওয়া দরকার, সংস্কার হওয়া দরকার, মেরামত করা দরকার সে গুলো করার জন্য আমরা ব্যবস্থা নেব।

ড. রেজা কিবরিয়া বলেন, আামি আপনাদেরকে জানাতে চাই, খুব ইতিবাচক আলোচনা হয়েছে এবং আমরা অনেক ব্যাপারে দেখলাম যে একমত। এখনকার দেশের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার পর আমরা বুঝেছি যে, আমরা একই পথে, একই চিন্তায় আছি। আমাদের খুব বেশি ব্যাপারে দ্বিমত নেই –এটা একটা খুশির খবর সব বিরোধী দলের জন্য এবং যারা বাংলাদেশে একটা পরিবর্তনের দিকে, পরিবর্তন চায় তাদের জন্য।

তিনি বলেন, আমরা এই সরকারের অধীনে নির্বাচনে যাওয়ার কোনো পরিকল্পনা নেই এবং আওয়ামী লীগের অধীনে কোনো সুষ্ঠু নির্বাচন হয় আমরা সেটা মনে করি না। অনেক দলের সাথে আলোচনা হচ্ছে, আরো হবে। একটা জাতীয় ঐক্য এই ব্যাপারে তৈরি করার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। আমাদের দুই দলের অবস্থান খুব কাছাকাছি এবং আমরা একসঙ্গে কাজ করব এই স্বৈরাচার, দুর্নীতিবাজ ও ফ্যাসিস্ট সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করতে। যারা দেশে গণতন্ত্র চায়, তারা সবাই একই ব্যানারে একসঙ্গে কাজ করব।

নুরুল হক নূর বলেন, দেশের চলমান সংকটে রাজনৈতিক দলগুলোর করণীয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে। চলমান সংকটকে যেভাবে আমরা দেখি, তাতে বিএনপির সাথে আমাদের খুব একটা পার্থক্য নাই যে সংকট থেকে উত্তরণে আমাদের করণীয় নিয়ে। আজকের আলোচনায় আমাদের ১০টা বিষয় ছিল, সেই ১০টা বিষয়ে আমরা একমত পোষণ করেছি।

ডাকসুর সাবেক এই ভিপি বলেন, ফ্যাসিবাদী সরকারকে হটাতে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন অন্যান্য রাজনৈতিক দলের সাথে বিএনপির দাবির সাথে আমরাও একমত। অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে সরকারকে পদত্যাগে বাধ্য করা, সংসদ বিলুপ্ত করা, রাজনৈতিক দলগুলোর ঐক্যমতের ভিত্তিতে একটি অন্তবর্তীকালীন সরকার গঠন করা এবং এই অন্তবর্তীকালীন সরকার একটা গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের স্বার্থে বর্তমান নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠন এবং ইভিএম বাতিল করে স্বচ্ছ ব্যালট বাক্সে ভোট গ্রহণের ব্যবস্থা করা।

পুরানা পল্টনের প্রতিম-জামান টাওয়ারে গণঅধিকার পরিষদের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপির এই সংলাপ হয়। বেলা ১১টায় বিএনপি মহাসচিব ৪ সদস্যের প্রতিনিধি দল নিয়ে গণঅধিকার পরিষদের কার্যালয়ে যান।

প্রতিনিধি দলের অন্য সদস্যরা হলেন, স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী ও মিডিয়া সেলের সদস্য জহির উদ্দিন স্বপন।

সংলাপে গণঅধিকার পরিষদের আহ্বায়ক ড. রেজা কিবরিয়া ৭ সদস্যের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন। প্রতিনিধি দলের অন্য সদস্যরা হলেন, সদস্য সচিব নুরুল হক নূর, যুগ্ম আহ্বায়ক মিয়া মশিউজ্জামান, হাবিবুর রহমান, রাশেদ খান, ফারুক হাসান ও জিসান মহসিন।

Kabir Steel Re-Rolling Mills (KSRM)
Rocket New Cash Out
Rocket New Cash Out
BKash My Offer
খবর বিভাগের সর্বাধিক পঠিত